আমতলীতে এবার স্বামীর পর স্ত্রীও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত | আপন নিউজ

বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৩:৩৩ অপরাহ্ন

আমতলীতে এবার স্বামীর পর স্ত্রীও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত

আমতলীতে এবার স্বামীর পর স্ত্রীও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত

আমতলী প্রতিনিধিঃ
নারায়ণগঞ্জ ফেরত ব্যবসায়ী প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার চার দিন পর স্ত্রীরও আক্রান্ত  হয়েছেন। স্বামী-স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের ঘটনায় এলাকার মানুষের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে। তারা গ্রামের বাড়ীতেই আলাদা আলাদা আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন। বৃহস্পতিবার রাতে করোনা ভাইরাসে ব্যবসায়ীর স্ত্রী আক্রান্তের খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। ব্যবসায়ী স্বামী আক্রান্ত হওয়ার পর গত শনিবার থেকে ওই বাড়ী লকডাউন করা আছে।
জানাগেছে, উপজেলার চাওড়া ইউনিয়নের কালিবাড়ী গ্রামের এক ব্যাক্তি গত ১০ বছর ধরে নারায়ণগঞ্জ থেকে কাপড়ের ব্যবসা করে আসছে। নারায়নগঞ্জে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা তিনি ও তার পরিবারের লোকজন ওইখান থেকে গত ১২ এপ্রিল পালিয়ে গ্রামের বাড়ী আমতলী আসেন।  করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে ওই ব্যবসায়ী বাড়ীতেই লুকিয়ে ছিল। তার শরীরের অবস্থা বেগতিক দেখে পরিবারের লোকজন গত ১৫ এপ্রিল আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিয়ে আসে। ওই হাসপাতালের চিকিৎসকরা তার নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকা রোগতত্ত¡  রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইইসিডিআর) পাঠিয়ে দেয়। ১৮ এপ্রিল রাত ১০ টার দিকে তার নমুনা প্রতিবেদন আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসে। তার প্রতিবেদনে উল্লেখ আছে তিনি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। গত রবিবার (১৯ এপ্রিল) ওই বব্যবসায়ীর পরিবারের নমুনা সংগ্রহ করে আমতলী হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ঢাকায় পাঠায়। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে তার স্ত্রীও করোনা ভাইরাস আক্রান্ত বলে প্রতিবেদন আসে। একই পরিবারে স্বামী-স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের খবরে এলাকার মানুষের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পরেছে। বর্তমানে স্বামী-স্ত্রী বাড়ীতে আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন। খবর পেয়ে ইউএনও মনিরা পারভীন বৃহস্পতিবার রাতেই তার বাড়ী পুনরায় লকডাউন করে দেন। এনিয়ে আমতলীতে পাঁচ জন প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে  গত ৯ এপিল আমতলী উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব জিএম দেলওয়ার হোসেন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরন করেন। ওই সময় থেকেই বরগুনা জেলা প্রশাসক মোঃ মোস্তাইন বিল্লাহ আমতলী উপজেলাকে লকডাউন ঘোষনা করেন। বর্তমান আমতলী উপজেলা লকডাউন অবস্থায় রয়েছে।
স্থানীয়রা জানান, করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ওই ব্যবসায়ী ১২ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ থেকে পরিবার নিয়ে গ্রামের বাড়ী আমতলীতে আসেন। বাড়ীতে এসে তারা লুকিয়ে ছিল। স্বামীর পর স্ত্রীও করোনা ভাইরাস আক্রান্ত হওয়ায় ঘটনায় এলাকার মানুষের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পরেছে।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক প্রতিবেশী বলেন, স্বামী-স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ায় আমরা খুব আতঙ্কের মধ্যে আছি।
স্থানীয় মেহেদী জামান রাকিব বলেন, নারায়ণগঞ্জ ফেরত  ওই ব্যবসায়ীর স্ত্রীও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত।  দ্রæত করোনা আক্রান্ত স্বামী-স্ত্রীর সুচিকিৎসাসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবী জানাই।
আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা শংকর প্রসাদ অধিকারী বলেন, ওই ব্যবসায়ী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পরে তার পরিবারের ৫ সদস্যদের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছিল। তাদের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানো হয়। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০ টার দিকে তার স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার প্রতিবেদন পেয়েছি। তিনি আরো বলেন, তাদের চিকিৎসা বাড়ীর আইসোলেশনে দেয়া হচ্ছে।
আমতলী থানার ওসি মোঃ শাহ আলম হাওলাদার বলেন, ওই রোগীদের হোম আইসোলেশন নিশ্চিত করা হয়েছে। তাদের নিরাপত্তার জন্য সার্বক্ষনিক পুলিশের নজরদারী রয়েছে।
আমতলী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মনিরা পারভীন বলেন, ওই রোগীদের বাড়ী আগেই লকডাউন করা আছে। বাড়ীতে রেখেই তাদের চিকিৎসাসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। আমি সবসময় তাদের খোজ খবর রাখছি।

আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.




© All rights reserved 2022 © aponnewsbd.com

Design By MrHostBD
error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!!