কলাপাড়ায় চাঁদা দাবীর মামলায় জেলা অডিট অফিসারের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা | আপন নিউজ

শুক্রবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০৩:২৯ পূর্বাহ্ন

প্রধান সংবাদ
কলাপাড়ায় চাঁদা দাবীর মামলায় জেলা অডিট অফিসারের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা

কলাপাড়ায় চাঁদা দাবীর মামলায় জেলা অডিট অফিসারের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা

আপন নিউজ অফিস।। কলাপাড়ায় অধিগ্রহণের টাকা আত্মসাৎ ও চাঁদা দাবীর মামলায় জেলা অডিট অফিসারসহ তিনজনের বিরুদ্ধে কলাপাড়া সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট গ্রেফতারী পরোয়ানার আদেশ দিয়েছেন। মামলা করে বিপাকে পড়েছে লালুয়া ইউনিয়নের নাওয়াপাড়া গ্রামের সোয়েম গাজী।

এলাকাবাসী ও মামলা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার লালুয়া ইউনিয়নের নাওয়াপাড়া গ্রামের মৃত দৌলত গাজীর পুত্র মোঃ সোয়েম গাজী ও আবদুর রশিদ গাজীর পুত্র মোঃ নাজমুল আহসান লাভলু গাজীর ওয়ারিশ প্রাপ্ত নয়াকাটা মৌজার এস,এ,৩৪৬/৩৬৬/নং খতিয়ানের ২.৩৩ একর ভূমি অধিগ্রহণের করে। ওই অধিগ্রহনের ২০ লক্ষ পন্জ্ঞাশ হাজার টাকা ওয়ারিশদের না জানিয়ে, পটুয়াখালী জেলা অডিট অফিসার মোস্তাফিজুর রহমান স্বপন গাজী ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে জাল জালিয়াতি কাগজপত্র সৃষ্টি করে জেলা ভুমি অফিসের কর্মচারীদের সাথে আঁতাত করে উত্তোলন করে আত্নসাত করেছেন এবং একই মৌজায় এস,এ,১৯৬/১৯৭/৩৯৬ নং খতিয়ানের প্রায় ২৩ একর ভুমির অধিগ্রহনের বরাদ্দকৃত টাকা মোটা অংকের চাদাঁর দাবীতে দেওয়ানী মোকদ্দমা দিয়ে উত্তোলন বন্ধ রাখে। পরে সোয়েম গাজীও নাজমুল আহসান গাজীর কাজ থেকে পাঁচ লক্ষ টাকা চাঁদা নিয়ে মামলা উত্তোলন করে। স্বপন গাজীর চাচাতো ভাই মোঃ সোয়েম গাজী জেনে, ৫ ডিসেম্বর ২১ তারিখে মোস্তাফিজুর রহমান স্বপন গাজী (৫৫), শিমুল গাজী (৫২), মোঃ শামিম গাজী (৪৭) কে আসামী করে কলাপাড়া সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। বিচারক মামলাটি আমলে নিয়ে সিআইডি পটুয়াখালী জেলাকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ প্রদান করেছেন। সিআইডি,পুলিশ পরিদর্শক (নিঃ) মোঃ বাহাউদ্দীন ফারুকী বিপিএম বাদী পক্ষের সাক্ষ্য প্রমান গ্রহন শেষে ২৩ মে- ২২ তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। বিচারক তদন্ত প্রতিবেদনের আলোকে আসামীদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানার আদেশ প্রদান করা হয়। অপরদিকে মোস্তাফিজুর রহমান স্বপন গাজী ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে এলাকার ২৯ জন ক্ষতিগ্রস্ত ভুমির মালিকদের ঘরবাড়ির বিরুদ্ধে ভুমি হুকুম দখল কর্মকর্তা পটুয়াখালী, আপত্তি দাখিল করে। একই এলাকার মোঃ ইয়াছিন রাজার পুত্র বশার, নুরছাহেদ পাহলানের পুত্র আনোয়ার হোসেন পহলান, নিজাম হাওলাদারের পুত্র মোঃ ইব্রাহিমসহ ২৯ জনের কাজ থেকে ৩০/৪০ হাজার টাকা করে হাতিয়ে নিয়ে আপত্তিপত্র প্রত্যহার করেন। এছাড়া স্বপন গাজী তার চাচাতো ভাই মোঃ নাজমুল আহসান (লাভলুগাজী)র বিরুদ্ধে ভুয়া, ভাক্ত, কাগজপত্রে জমির মালিকানা দাবী করে, কলাপাড়া সিনিয়র সহকারী জজ আদালতে দেওয়ানী মোকদ্দমা দিয়ে দশ লক্ষ টাকা চাঁদার দাবী করছেন বলে, নাজমুল আহসান লাভলু গাজী অভিযোগ করে। এছাড়া মোস্তাফিজুর রহমান স্বপন গাজীর বিরুদ্ধে অসংখ্য অভিযোগ রয়েছে। অভিযুক্ত মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান স্বপন গাজী তার দলবলসহ সোয়েম গাজীকে মামলা প্রত্যাহারের জন্য নানা ভাবে মোবাইল ফোনে হুমকি প্রদর্শন করছে বলে, সোয়েম গাজী এ প্রতিনিধিকে জানান।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান স্বপন গাজীর সাথে যোগাযোগ করা হলে তার ফোন নম্বরটি বন্ধ পাওয়া যায়।

আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




বার্তা ও বাণিজ্যিক যোগাযোগঃ
সদর রােড (উকিলপট্টি) কলাপাড়া, পটুয়াখালী।
হটলাইনঃ +৮৮ ০১৭১৯৯৩৫৫০৮
বরিশাল অফিসঃ গনি ভবন, জর্ডন রোড বরিশাল।
হটলাইনঃ +৮৮ ০১৬১১৫৭৪৪১৫
মেইলঃ alomgirsikderkalapara@gmail.com

© All rights reserved 2022 © aponnewsbd.com

Design By JPHostBD
error: সাইটের কোন তথ্য কপি করা নিষেধ!!